লঞ্চ হল মণীশা কৈরালার জীবনী

36

দিনদর্পণ : মঙ্গলবার মুম্বই-এ লঞ্চ হল অভিনেত্রী মণিশা কৈরালার জীবনী ‘হাউ ক্যানসার গেভ মি অ্যা নিউ লাইফ’।

বই লঞ্চ-র অনুষ্ঠানে মণীশা-র পরিবারের সদস্যরা এবং ইন্ডাস্ট্রির কাছের কিছু বন্ধু উপস্থিত ছিলেন। ‘সউদাগর’ ছবির মাধ্যমে মণীশার প্রথম বলিউড ডেবিউ হয়। সেই ছবিতে তাঁর কো-স্টার ছিলেন অনুপম খের। বই লঞ্চের অনুষ্ঠানে অনুপম খেরও উপস্থিত ছিলেন। অনুপম খের ইনস্টাগ্রামে লেখেন, ‘আজ মণীশার বই লঞ্চ। আজ ওকে দেখে আমার ভাই রাজু খের-র কথা মনে পড়ে যাচ্ছে। যিনি একজন ক্যানসার সারভাইভার। সার্জারীর আগেও মণীশা তাঁর প্রথম সিনেমার মতোই সুন্দর ছিলেন। মণীশার জীবনী পড়ে সবাই উদ্ধুদ্ধ হবে। অনেককেই অনুপ্রেরণা জাগাবে তাঁর এই বই’।

১৯৪২-এ বিনোদ চোপড়ার ‘অ্যা লাভ স্টোরি’-তে জাকির স্রাফ এবং মণীশা একসঙ্গে অভিনয় করেছিলেন। এদিন জাকিরও উপস্থিত ছিলেন তাঁর কাছের লোক হিসেবে।

অনুপম খের, জাকির স্রাফ ছাড়াও রেখা, শেখর কাপুর, দিয়া মির্জা, বিধু বিনোদ চোপড়া, গুলসন গ্রোভার, মহেশ ভাট-ও উপস্থিতিদের তালিকায় ছিলেন। মণীশা সবার ছবি একসঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্ট করে ক্যাপশান দেন, ‘ফ্রেন্ডস লাইক ফ্যামিলি’।

মণীশা একজন ক্যানসার সারভাইবার। ২০১২-তে তাঁর ওভারি ক্যানসার ধরা পড়ে। তিনি কিছুদিন আগে বলেন, ‘কোন বড় রোগ একটা মানুষের গোটা জীবন পাল্টে দিতে পারে। একটা বড় রোগের সঙ্গে লড়াই করে কিভাবে জিতে ফিরেছেন তিনি, বই-টা তা নিয়েই লেখা’।

নেপালে জন্মগ্রহণ করেন মনীশা। ১৯৯১-এ সউদাগর-র মাধ্যমে তাঁর বলিউডে ডেবিউ হয়। ‘আকেলে হাম আকেলে তুম’, ‘বোম্বে’, ‘খামোশি’, ‘দ্য মিউজিক্যাল’, ‘দিল সে’, ‘মান’, ‘লাজ্জা’ ছবিতে অনবদ্য অভিনয় করেছেন মণীশা। ২০১২তে ক্যানসার ধরা পড়ার পর তিনি অভিনয় থেকে বিরতি নেন। আবার পাঁচ বছর পর ‘ডিয়ার মায়া’তে আবার তাঁকে অভিনয় করতে দেখা যায়। শেষবার তাঁকে ‘সঞ্জু’ সিনেমায় দেখা যায়।